নিজস্ব প্রতিবেদক, 27 March-2017, 08:57:58pm

আইন অনুযায়ী গণপরিবহণে মহিলাদের আসনে কোনও পুরুষ বসলে এখন থেকে এক মাসের কারাদণ্ড অথবা পাঁচ হাজার টাকা জরিমানার বিধান রাখা হচ্ছে। এ ছাড়া এ বার থেকে গাড়িচালককে কমপক্ষে অষ্টম শ্রেণি পাশ হতে হবে। পাশাপাশি পঞ্চম শ্রেণি পাশ হতে হবে  চালকের সহকারীদের (হেলপার)। থাকতে হবে সহকারী লাইসেন্সও। কোনও চালক গাড়ি চালানোর সময় মোবাইলে কথা বললে তার এক মাসের কারাদণ্ড অথবা পাঁচ হাজার টাকা জরিমানার বিধানও করা হচ্ছে আইনে।


সোমবার সচিবালয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত বৈঠকে এ সংক্রান্ত সড়ক পরিবহন আইন, ২০১৭-এর নীতিগত অনুমোদন দেওয়া হয়। এই আইনের খসড়া তৈরি করেছিল সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগ।

এ বিষয়ে মন্ত্রিপরিষদের সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম সাংবাদিকদের জানান, আইনের খসড়ায় ২৫টি নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এর মধ্যে যানবাহনের মালিক ও চালকদের জন্য নির্দেশের পাশাপাশি যাত্রীদের জন্যও কিছু নির্দেশ রয়েছে। যানবাহনে মহিলাদের জন্য সংরক্ষিত আসনে কোনো পুরুষ যাত্রী বসলে সেটি এই আইনে একটি অপরাধ। এই অপরাধে অভিযুক্তকে এক মাসের কারাদণ্ড অথবা পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করা হবে।




এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

টেস্ট টিউব শিশু বৈধ : পাকিস্তানের কেন্দ্রীয় শরীয়া আদালত

সন্তান জন্মদানের জন্য টেস্ট টিউব পদ্ধতি গ্রহণকে ইসলামের দৃষ্টিতে জায়েজ বা বৈধ বলে রায় দিয়েছে

তারেকের সমন লন্ডনে পৌঁছানো হয়েছে কিনা জানতে নির্দেশ

অর্থপাচার মামলায় বিএপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে দেওয়া আত্মসর্মপনের নোটিস (সমন)

চলতি মাসেই শেষ হচ্ছে পিলখানা হত্যা মামলার বিচার

চলতি মাসেই শেষ হতে পারে পিলখানা হত্যা মামলার বিচার। আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারির মধ্যে এই মামলার সকল যুক্তিতর্ক

শিশু সোনিয়াকে ধর্ষণ ও হত্যার দায়ে একজনের মৃত্যুদণ্ড

জেলার চুরখাই এলাকায় সাত বছরের শিশু সোনিয়া আক্তারকে ধর্ষণ ও হত্যার দায়ে রফিকুল ইসলাম কাজল নামে

হানিফ ফ্লাইওভারের বাসস্ট্যান্ড ও সিঁড়ি অপসারণে রিট

রাজধানীর যাত্রাবাড়ি মেয়র হানিফ ফ্লাইওভার থেকে বাসস্টেশন ও ফ্লাইওভারে উঠার সিঁড়ি অপসারণের নির্দেশনা

ধর্ষণের অভিযোগে মামলা : দায়েরকারী নারীর কারাদণ্ড

ধর্ষণের মিথ্যা অভিযোগ এনে মামলা দায়ের করায় দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে ফিরোজা বেগম নামে এক নারীকে।

৩৪টি কোম্পানির লাইসেন্স বাতিল : নিম্ন মানের ওষুধ তৈরি

সঠিক মানের ওষুধ উৎপাদনে ব্যর্থ। সেই কারণে বাংলাদেশর ২০টি ওষুধ কোম্পানির লাইসেন্স বাতিল করল হাইকোর্ট।