নিজস্ব প্রতিবেদক, 16 February-2017, 08:04:46pm

রোগ সারাতে হাসপাতালে যান মানুষ। এ বার হাসপাতালের রোগ সারানোর পালা। চিকিৎসার খরচের হিসেব ফুলিয়েফাঁপিয়ে দেখিয়ে রোগীকে ঠকানোর অভিযোগ বেসরকারি হাসপাতালগুলির বিরুদ্ধে নতুন নয়। এ ব্যাপারে কলকাতার কয়েকটি প্রতিষ্ঠানের উপর এমনিতেই চটে ছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। নবান্নের শীর্ষ সূত্রের খবর, বেসরকারি হাসপাতালগুলির বিরুদ্ধে এ বার কিছু ভয়াবহ অভিযোগ পেয়ে পুরোদস্তুর তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। সঙ্গে জানিয়ে দিয়েছেন, ওই তদন্ত রিপোর্টের ভিত্তিতেই বেসরকারি মালিকানায় থাকা এক শ্রেণির হাসপাতালের রোগ সারাতে কড়া ওষুধের ব্যবস্থা করবেন তিনি।

গত সপ্তাহেই কলকাতার কয়েকটি বেসরকারি হাসপাতালের বিরুদ্ধে প্রচুর টাকার বিল ধরানোর অভিযোগ মুখ্যমন্ত্রীর সামনে নতুন করে আসে। গত সোমবার বিধানসভায় এসে স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে আলোচনায় বসেছিলেন মমতা। সূত্রের খবর, সেই সময়েই স্পিকার মুখ্যমন্ত্রীকে জানান, বেশ কিছু বিধায়কের চিকিৎসার খরচ পরিশোধের জন্য বিভিন্ন বেসরকারি হাসপাতাল থেকে যে বিল এসেছে, তাতে গরমিল রয়েছে বলে সন্দেহ হচ্ছে। যেমন দেখা গিয়েছে, একটি হাসপাতাল বেড-ভাড়া বাবদ একবার ৬ হাজার টাকা চার্জ করেছে, ক’দিন বাদে আবার ওই একই বেডের ভাড়া দ্বিগুণ ধরা হয়েছে। তা ছাড়া বিভিন্ন পরীক্ষা-নিরীক্ষা এবং অস্ত্রোপচার বাবদ যে খরচ দেখানো হয়েছে, তা একেবারেই সঙ্গতিপূর্ণ বলে মনে হচ্ছে না। কখনও আবার একই পরীক্ষার জন্য খরচ বিভিন্ন রকম দেখানো হয়েছে। মুখ্যমন্ত্রীকে স্পিকার জানান, কোনও বিধায়কের চিকিৎসার জন্য বেসরকারি হাসপাতালের তরফে ১৪ লক্ষ টাকার বিল পাঠানো হয়েছে, কারও বিল ১১ লক্ষ টাকার।

প্রসঙ্গত বিধায়কদের চিকিৎসার খরচ পুরোটাই বহন করে সরকার। হাসপাতালের তরফে বিধানসভায় বিল পাঠানো হয়। সরকার তা পরিশোধ করে। সূত্রের খবর, স্পিকারের কাছ থেকে সব শুনেই মুখ্যমন্ত্রী বলেন, এ ভাবে লোক ঠকানো যে এক শ্রেণির বেসরকারি হাসপাতালের ‘প্র্যাকটিস’ হয়ে গিয়েছে সেটা তিনিও জানেন। বিধায়ক তথা সরকারকে যদি কেউ এ ভাবে ঠকাতে পারে, তা হলে সাধারণ মানুষকে কতটা প্রতারিত হচ্ছেন, সহজেই বোধগম্য। এর তদন্ত হওয়া উচিত। মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশ পাওয়া মাত্র, চার জন চিকিৎসককে নিয়ে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করে দেন স্পিকার। বেসরকারি হাসপাতালগুলির পাঠানো

বিল খতিয়ে দেখে তাঁদের দ্রুত রিপোর্ট দিতে বলা হয়েছে। তার পর সংশ্লিষ্ট সব হাসপাতালের কাছে কৈফিয়ত চাওয়া হবে।




এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

জাপানের উপর দিয়ে উড়ল উত্তর কোরীয় ক্ষেপণাস্ত্র

এত দিন বিষয়টা ছিল হুমকি এবং পাল্টা হুমকির পর্যায়ে। এ বার সেই হুমকিকে বেশ কয়েক ধাপ বাড়িয়ে

দ্রুততম টহলদারি গাড়ি দুবাই পুলিশে : ঘণ্টায় ৪০৭ কিলোমিটার!

কথায় বলে, দুবাইতে নাকি সব কিছুই দ্রুত গতির। শহরের পুলিশ বাহিনীর কথাই ধরুন না! সেখানে রয়েছে দুনিয়ার

৬ হাজার মাইল ফিরে গিয়ে প্রাণ বাঁচানো ‘পরম বন্ধুকে’ নিয়ে এলেন

বয়ফ্রেন্ডের সঙ্গে গ্রিসে ছুটি কাটাতে গিয়েছিলেন ২৫ বছরের জর্জিয়া ব্রাডলি। ক্রেটে ঘোরার সময় হঠাত্ই

ব্রিটিশ পার্লামেন্টের বাইরে জঙ্গি হামলা : নিহত ৫, আহত ৪০

ব্রিটিশ পার্লামেন্টের বাইরে জঙ্গিহানায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৫। আহতের সংখ্যা কমপক্ষে ৪০।

ভারতের উত্তর প্রদেশে কসাইখানা ও গরু পাচার বন্ধের নির্দেশ যোগীর

বিজেপি-র নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি পূরণে উদ্যোগী হলেন ভারতের উত্তর প্রদেশের নয়া মুখ্যমন্ত্রী যোগী

আমেরিকাগামী বিমানে ল্যাপটপে নিষেধাজ্ঞা জারি

হাতে ল্যাপটপ নিয়ে আর আমেরিকাগামী বিমানে চড়া যাবেনা। মার্কিন প্রশাসন নয়া নির্দেশে আমেরিকাগামী

ইথিওপিয়ায় জঞ্জালের স্তূপ ধসে চাপা পড়ে মৃত ৪৬

জঞ্জালের স্তূপ ধসে চাপা পড়ে মৃত্য হল কমপক্ষে ৪৬ জনের। আহত হয়েছে বেশ কয়েকজন। ঘটনাটি ঘটেছে ইথিওপিয়া

ভুতের ভয়ে বাড়িছাড়া ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট মাইকেল!

ভুতের ভয়ে প্রাসোদপম বাড়ি ছেড়ে স্ত্রী-পুত্রকে নিয়ে রাস্তায় প্রেসিডেন্ট! এমনটাই ঘটল ব্রাজিলের

বাবরি মসজিদ ইস্যু : আলোচনায় সমাধান চায় শীর্ষ আদালত

ভারতে উগ্রবাদী হিন্দুদের ভেঙে ফেলা বাবরি মসজিদের স্থানে রামমন্দির স্থাপন নিয়ে দু’পক্ষের বোঝাপড়ার

চীনে ১৯ তলা অ্যাপার্টমেন্ট ভবনের ভেতর দিয়েই চলছে রেল!

চীনের চোংগিং শহরে ভবনের ভেতর দিয়ে চলে গেছে রেল লাইন। ১৯ তলা ভবনটির ভেতরেই বানানো হয়েছে রেল স্টেশন।

ফরাসি বিমানবন্দরে সেনার বন্দুক কেড়ে গুলিতে সন্দেহভাজন মৃত্যু

স্কুলে বন্দুকবাজের হানা ও অফিসে চিঠি বোমা বিস্ফোরণের রেশ কাটতে না কাটতে দু’দিনের মধ্যেই ফের

ব্রিটেনের কনিষ্ঠতম মা হতে চলেছে ১১ বছরের এক কিশোরী

ব্রিটেনের কনিষ্ঠতম মা হতে চলেছে মাত্র ১১ বছরের এক কিশোরী। তার সন্তানের বাবাও নাবালক এবং তার থেকে

A PHP Error was encountered

Severity: Core Warning

Message: PHP Startup: Unable to load dynamic library '/opt/cpanel/ea-php56/root/usr/lib64/php/modules/mysql.so' - /opt/cpanel/ea-php56/root/usr/lib64/php/modules/mysql.so: cannot open shared object file: No such file or directory

Filename: Unknown

Line Number: 0

Backtrace: